প্রেসিডেন্ট এরদোয়ানের হাতে “এরদোয়ান: দ্যা চেঞ্জ মেকার” বইটি তুলে দিলেন লেখক হাফিজুর রহমান

তুরস্কের সংবাদ প্রবাস দিগন্ত

তুরস্ক থেকে বোরহান উদ্দিনঃ তুরস্কের প্রেসিডেন্ট রেজেপ তায়্যিপ এরদোয়ানের জীবনী নিয়ে বাংলা ভাষায় লিখিত বই, “এরদোয়ান: দ্যা চেঞ্জ মেকার” এরদোয়ানের হাতে তুলে দেন বইটির লেখক হাফিজুর রহমান।

একে পার্টির পার্লামেন্টারী গ্রুপের মিটিংয়ের বিশেষ সেশনে বই তুলে দেওয়ার সময় তুরস্কের প্রধানমন্ত্রী বিনালী ইলদিরিম, মন্ত্রী পরিষদের সদস্যবৃন্দ, একে পার্টির সিনিয়র নেতৃবৃন্দ এবং সকল এমপিরা এ সময় উপস্থিত ছিলেন।

লেখক প্রেসিডেন্টকে বইটিতে স্থান পাওয়া বিভিন্ন বিষয় তুলে ধরেন এবং বইটি বাংলাদেশী পাঠকদের মধ্যে ব্যাপক জনপ্রিয়তা পেয়েছে বলে উল্লেখ করেন। পাশাপাশি এরদোয়ানের প্রতি বাংলাদেশীদের আবেগ ও ভালোবাসার কথা উল্লেখ করেন।

প্রেসিডেন্ট এরদোয়ান বইটি লিখার জন্য লেখককে ধন্যবাদ জানান এবং তার প্রতি এ ধরনের ভালোবাসায় জন্য কৃতজ্ঞতা প্রকাশ করেন।

বই তুলে দেওয়ার সময় লেখকের সাথে তুরস্কের অন্যতম সিভিল সোসাইটি সংগঠন “ইয়েনী দুনিয়া ভাকফি” এর চেয়ারম্যান ও সাবেক এমপি মাহমুদ গুকসু, সংসদ সদস্যবৃন্দ, ইয়েনী দুনিয়া ভাকফি আনকারা শাখার সভাপতি ও কার্যকরী কমিটির সদস্য প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন।

উল্লেখ্য, হাফিজুর রহমান তুরস্কের গাজী ইউনির্ভাসিটিতে রাজনীতি ও লোক প্রশাসন বিভাগে পিএইচডি করছেন এবং ইয়েনী দুনিয়া ভাকফি আনকারা শাখার ইন্টারন্যাশনাল স্টুডেন্টস কমিশনের সভাপতির দায়িত্ব পালন করছেন।

সামরিক শক্তিতে বিশ্বে বাংলাদেশ ৫৭তম

সামরিক শক্তিতে বিশ্বে বাংলাদেশের অবস্থান ৫৭তম। আন্তর্জাতিক সামরিক শক্তি বিশ্লেষণ সংস্থা গ্লোবাল ফায়ার পাওয়ার ইনডেক্সের ২০১৭ সালের প্রতিবেদনে এই তথ্য উঠে এসেছে।

সূচকে বিশ্বে শীর্ষ অবস্থানে যুক্তরাষ্ট্র। এর পরই আছে রাশিয়া, চীন ও ভারত। ১৩৩টি দেশের মধ্যে পাকিস্তানের অবস্থান ১৩তম। এছাড়া প্রথম ১৫টি দেশের মধ্যে আছে জার্মানি, যুক্তরাজ্য, জাপান ও ইসরায়েল।

তবে ফায়ার পাওয়ারের এই সূচকে পরমাণু শক্তিকে বিবেচনায় আনা হয়নি। সূচক অনুসারে, বাংলাদেশের প্রতিরক্ষা বাজেট ১.৫৯ বিলিয়ন ডলার। সক্রিয় সামরিক বাহিনীর সদস্য রয়েছে এক লাখ ৬০ হাজার।

বাংলাদেশ বিমানবাহিনীর যুদ্ধবিমান আছে ১৬৬টি। এছাড়া ট্যাংক আছে ৫৩৪টি, সামরিক যান আছে ৯৪২টি ও স্বয়ংক্রিয় আর্টিলারি গান আছে ১৮টি। এর বাইরে রকেট প্রোজেক্টর আছে ৩২টি।

প্রতিবেদন অনুসারে, ৮৯টি নৌ-সম্পদ আছে বাংলাদেশের। এরমধ্যে ছয়টি ফ্রিগেট, চারটি কভার্টিস, ২৮টি টহল নৌ-যান। এই সূচকে সাবমেরিনের কথা উল্লেখ করা হয়নি।

অপরদিকে প্রতিবেশী দেশ ভারতের বছরে প্রতিরক্ষা ব্যয় ৫১ বিলিয়ন ডলার, পাকিস্তানের সাত বিলিয়ন ডলার ও এই অঞ্চলে সবচেয়ে বেশি চীনের ১৬১.৭ বিলিয়ন ডলার।

ভারতের সামরিক বাহিনীর সদস্য সংখ্যা ১৩ লাখ ৬২ হাজার ৫০০, পাকিস্তানের ছয় লাখ ৩৭ হাজার আর চীনের ৩৭ লাখ ১২ হাজার ৫০০। সূচকে প্রতিবেশী মিয়ানমারের অবস্থান ৩১তম। তাদের সক্রিয় সামরিক সদস্য আছে চার লাখ ছয় হাজার। যুদ্ধবিমান আছে ৫৬টি, ট্যাংক আছে ৫৯২টি।

ব্রেকিংনিউজ/ আরএস

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.